Logo
আজঃ বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪
শিরোনাম

তুচ্ছ ঘটনায় ছোট ভাইয়ের হাতে বড় ভাই খুন

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ৯১জন দেখেছেন

Image

কুমিল্লার চান্দিনায় গরুর গোবর ফেলাকে কেন্দ্র করে ছোট ভাইয়ের হাতে খুন হলেন হানিফ মিয়া (৩৫)। বুধবার চান্দিনা উপজেলা সদরের আনিছ মোহাম্মদের বাড়িতে (আনিছা বাড়ি) এ ঘটনা ঘটে। নিহত হানিফ মিয়া ওই এলাকার আনু মিয়ার ছেলে। তিন ভাইয়ের মধ্যে বড় হানিফ। হত্যাকারী আনিছ মিয়া নিহতের আপন ছোট ভাই। 

প্রত্যক্ষদর্শী একজন জানান, তারা দুই ভাইয়ের পৃথক গরুর খামার আছে। বাড়ির পাশে অন্যের খালি জায়গায় দুই ভাই দীর্ঘদিন যাবৎ গরুর গোবর ফেলে আসছে। বুধবার দুপুরে ওই স্থানে গরুর গোবর ফেলাকে কেন্দ্র করে দুই ভাইয়ের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। চরম উত্তেজনার মধ্যে মেঝ ভাই আনিছ মিয়া বড় ভাই হানিফ মিয়াকে মারধর করে। এক পর্যায়ে তাকে কাঠের চোখা টুকরো দিয়ে আঘাত করায় ওই কাঠের চোখা অংশ বাম চোখের ভিতর দিয়ে মাথায় ঢুকে যায়। তাকে উদ্ধার করে চান্দিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। 

চান্দিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. মো. আরিফুর রহমান জানান, তার শরীরের বিভিন্ন অংশের ধারালো অস্ত্রের আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। প্রচন্ড রক্তক্ষরণ ও মস্তিস্কে আঘাতজনিত কারণে তার মৃত্যু হয়। চান্দিনা থানার উপ-পরিদর্শক (এস.আই) মো. গিয়াস উদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ঘটনার পরপর হত্যাকারী পালিয়ে গেছে। এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থাসহ হত্যাকারীকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। 


আরও খবর



বুবলী-পরীর দ্বন্দ্ব নিয়ে এবার মুখ খুললেন বর্ষা

প্রকাশিত:সোমবার ২৫ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ১৫ এপ্রিল ২০২৪ | ৫০জন দেখেছেন

Image

একমাত্র ছেলে শেহজাদ খান বীরের জন্মদিন উপলক্ষে কয়েকদিন আগেই একটি ভিডিও পোস্ট করে কটাক্ষের মুখে পড়েন ঢাকাই সিনেমার আলোচিত চিত্রনায়িকা শবনম বুবলী। ভিডিওটি প্রকাশের পরই তাকে ইঙ্গিত করে স্ট্যাটাস দেন চিত্রনায়িকা পরীমণি। এর অবশ্য জবাবও দেন বুবলী। এরপর আবার পাল্টা খোঁচা দিয়ে স্ট্যাটাস দেন পরীমণি।

বুবলী-পরীমণির এই ভার্চুয়াল যুদ্ধের মধ্যেই একই দিন বিকালে সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুকে একটি ইঙ্গিতমূলক পোস্ট করেন আরেক চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস। পোস্টে এ নায়িকা লেখেন, ‘উফ কি সুন্দর ওয়েদার। বলার ভাষা নেই, আবেগ নেই, মিউজিক নেই, শুধু ছবিটাই আছে।’

সোশ্যাল মিডিয়ায় এভাবে যখন ভার্চুয়াল যুদ্ধ চলছে, সেই সময় এই ইস্যু নিয়ে কথা বললেন চিত্রনায়িকা আফিয়া নুসরাত বর্ষা। সম্প্রতি কেনাকাটা করার সময় সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন তিনি। এ সময় তিনি জানান, প্রতিযোগিতা হলে সেটি কেবলই কাজ নিয়ে হওয়া উচিত। ব্যক্তিচর্চায় কখনো সম্মান আসে না। বরং এতে আরও হিংসা-বিদ্বেষ তৈরি হয়।

বুবলী-পরীর মধ্যকার চর্চার ব্যাপারে জানতে চাইলে নায়িকা বর্ষা বলেন, আমি আসলে এসবের মধ্যে একদমই থাকতে চাই না। কারণ, আমারও সন্তান আছে। সন্তানদের প্রসঙ্গে এভাবে কথা বলা উচিত নয়। এসব যদি ভবিষ্যতে সন্তানরা দেখে, তাহলে লজ্জা পাবে তারা। তার ভাববে, মা ও তার কলিগরা কী করতো এসব? এ জন্য এসব এড়িয়ে চলা ভালো বলে মনে করি আমি।

এছাড়া আসন্ন ঈদ প্রসঙ্গ উঠতেই বর্ষা জানান, ঈদ কিংবা যেকোনো উৎসব-আয়োজনেই নিজ হাতে সবার জন্য রান্না করতে পছন্দ করেন তিনি। স্বামী অনন্ত জলিল তার রান্না পায়েস খেতে ভীষণ পছন্দ করেন। এ জন্য পায়েসই বেশি রান্না করা হয়। আর এবারের ঈদে পরিবার নিয়ে তুরস্ক পাড়ি জমাবেন। সেখানে ছুটি কাটাবেন এবং একই সঙ্গে সিনেমার কাজ করবেন বলেও জানান এ অভিনেত্রী।


আরও খবর



প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন এডিবি'র ভাইস প্রেসিডেন্ট

প্রকাশিত:রবিবার ৩১ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ১৮৪জন দেখেছেন

Image

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের (এডিবি) ভাইস প্রেসিডেন্ট (সেক্টর ও থিমস) ফাতিমা ইয়াসমিন।

আজ সকালে গণভবনে তাদের সৌজন্য সাক্ষাৎ হয়। এসময় এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের (এডিবি) ভাইস প্রেসিডেন্ট (সেক্টর ও থিমস) ফাতিমা ইয়াসমিন প্রধানমন্ত্রীর হাতে এডিবি কর্তৃক প্রকাশিত 'বাংলাদেশ ইকোনমিক করিডোর ডেভলপমেন্ট হাইলাইটস' বইটি তুলে দেন। 

এশীয় উন্নয়ন ব্যাকের (এডিবি) একটি উচ্চক্ষমতাসম্পন্ন প্রতিনিধিদল এসময় উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



রোজা ফরজ হওয়ার রহস্য ও তাৎপর্য

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ১০৩জন দেখেছেন

Image

মহান প্রভু কোরআনে কারিমে ইরশাদ করেন, ‘হে মুমিনগণ! তোমাদের ওপর রোজা ফরজ করা হয়েছে, যেমন ফরজ করা হয়েছিল তোমাদের পূর্ববর্তীদের ওপর, যেন তোমরা তাকওয়া (খোদাভীতি) অর্জন করতে পার। (সুরা বাকারা-১৮৩)। 

তাকওয়া অর্জন হওয়ার জন্য রোজা ফরজ করা হয়েছে। তাকওয়া আরবি শব্দ। এর ভাবার্থ হলো, খোদাভীতি, আত্মরক্ষা ইত্যাদি। শরিয়তের পরিভাষায় আল্লাহতায়ালার ভয়ভীতি নিয়ে তাঁর নির্দেশসমূহ পালন করা এবং নিষেধাজ্ঞাসমূহ থেকে বেঁচে থাকার নাম হলো, ‘তাকওয়া’। যে ব্যক্তির তাকওয়া যত বেশি আল্লাহর কাছে তার সম্মান ততই বেশি। 

আল্লাহতায়ালা ঘোষণা করেন, ‘নিশ্চয় তোমাদের মধ্যে আল্লাহর কাছে সর্বাপেক্ষা সম্মানিত ওই ব্যক্তি যে তোমাদের মধ্যে সর্বাপেক্ষা তাকওয়ার অধিকারী’। (সুরা হুজরাত-১৩)। তাকওয়া এবং খোদাভীতি মানুষকে পরিশুদ্ধ করে, আলোকিত করে, সৎকাজে উৎসাহ জোগায় এবং পাপাচার বর্জন করার প্রেরণা সৃষ্টি করে। তাকওয়া অর্জনের ফলে একটি মানুষ অন্যায়-অনাচার, সুদ-ঘুষ বর্জন করতে পারে। গড়ে উঠতে পারে একটি আদর্শ ও শান্তিপূর্ণ সমাজ ব্যবস্থা। আর এই মহৎ গুণটি অর্জনের শ্রেষ্ঠ ও সহজ উপায় হলো রোজা রাখা। 

কারণ রোজা হলো নির্দিষ্ট সময়ে কিছু কাজ বর্জন করা। যে ব্যক্তি দিনের বেলায় ওই কাজগুলো বর্জন করবে সে সত্যিকারার্থে আল্লাহর ভয়েই বর্জন করবে। এভাবে তার অন্তরে আল্লাহর প্রতি অকৃত্রিম ভয়ভীতি বৃদ্ধি পাবে। এক পর্যায়ে তার অন্তরে আল্লাহর ভয়ভীতি জাগ্রত হওয়ার ফলে সে সব ধরনের অন্যায় ও পাপাচার বর্জনে অভ্যস্ত হয়ে যাবে। এ লক্ষ্য নিয়ে রমজানের রোজা আদায় করতে সক্ষম হলে সার্থক হবে আমাদের সাধনা। 

সাহাবি আবু হুরায়রা (রা.) থেকে বর্ণিত, রসুলুল্লাহ (সা). ফরমান, যেদিন তোমাদের কেউ রোজা রাখে, তখন রোজা অবস্থায় সে যেন অশ্লীলতা, অনৈতিকতা ও ঝগড়া বিবাদে জড়িয়ে না যায়। যদি কেউ তাকে গালি দেয় অথবা হত্যা করে তখন সে বলবে আমি রোজাদার মানুষ। (সহিহ বুখারি, সহিহ মুসলিম)। 

অপর হাদিসে তিনি বলেন, যে ব্যক্তি মিথ্যা বলা ও এ অনুযায়ী কর্মত্যাগ করেনি তার পানাহার বর্জন করা আল্লাহর জন্য কোনো প্রয়োজন নেই। (সহিহ বুখারি)। এই পবিত্র রমজান মাসে যাবতীয় ইবাদত-বন্দেগি যথাযথভাবে পালন করার সর্বাত্মক প্রচেষ্টা করতে হবে। নিজেকে বিরত রাখতে হবে সব ধরনের দুর্নীতি, পাপাচার, মিথ্যা এবং অন্যায় অপকর্ম থেকে।

এ মাসের প্রতিটা মুহূর্তই সংযম সাধনায় নিবেদিত করতে হবে। বিশেষ করে কোরআন অবতরণের এই মাসে কোরআনে কারিমের বিশুদ্ধ তিলাওয়াত হলো উত্তম একটি আমল। আর দিনের বেলায় রোজা এবং রাতে তারাবির নামাজ আদায়ে বিশেষভাবে যত্নবান হতে হবে। ফেরেশতাকুল সম্রাট জিবরাইল (আ.) প্রতি বছর রমজানে মহানবী (সা.)-এর কাছে আগমন করতেন, রসুলুল্লাহ (সা.) তাকে কোরআন শুনাতেন। (সহিহ মুসলিম)

মহানবী (সা.) বলেন, যে ব্যক্তি ইমানের সঙ্গে পুণ্য হিসেবে রমজানের রোজা পালন করবে তার পেছনের সব পাপ ক্ষমা করা হবে। (সহিহ বুখারি সহিহ মুসলিম)। অপর হাদিসে তিনি বলেন, যে ব্যক্তি ইমানের স্বার্থে পুণ্য হিসেবে রমজানের নামাজ (তারাবিহ) আদায় করবে তার পেছনের সব পাপ ক্ষমা করা হবে। (সহিহ বুখারি, সহিহ মুসলিম)।


আরও খবর

অন্তরের মরিচা দূর করতে করণীয়

রবিবার ৩১ মার্চ ২০২৪




ইসরায়েলে অস্ত্র রপ্তানি স্থগিত করল কানাডা

প্রকাশিত:বুধবার ২০ মার্চ ২০24 | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ এপ্রিল ২০২৪ | ৪৮জন দেখেছেন

Image

ইসরায়েলে প্রাণঘাতী অস্ত্র রফতানি স্থগিত করল কানাডা। দেশটির সরকারের একটি সূত্র গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। কানাডার সমরাস্ত্রের অন্যতম শীর্ষ ১০ ক্রেতাদেশের মধ্যে ইসরায়েল অন্যতম।

কানাডার বেতার সংবাদমাধ্যম রেডিও কানাডার তথ্যানুযায়ী, ২০২২ সালে ইসরায়েলে ২ কোটি ১০ লাখ কানাডিয়ান ডলার এবং ২০২১ সালে ২ কোটি ৬০ লাখ কানাডিয়ান ডলার সমমূল্যের সমরাস্ত্র রফতানি করেছে দেশটি। চলতি মার্চ মাসের শুরুর দকে কানাডার পার্লামেন্টে একটি অভিযোগ জমা দেন দেশটির আইনজীবীদের একাংশ এবং ফিলিস্তিনি বংশোদ্ভূত কানাডীয়রা। সেখানে তারা বলেন, গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলি বাহিনীর অভিযান চলমান থাকা অবস্থায় দেশটির কাছে অস্ত্র বিক্রি করা কানাডার অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক আইনের পরিপন্থী।

এই অভিযোগকে আমলে নিয়ে সোমবার একটি রেজোল্যুশন পাস করে কানাডার পার্লামেন্ট। রেজোলুশ্যনটিতে বলা হয়েছে, কানাডা ইসরায়েলে সামরিক যোগাযোগ ইক্যুইপমেন্ট বা এই জাতীয় সরঞ্জাম ব্যতীত কোনও প্রকার প্রাণঘাতী অস্ত্র কিংবা সরঞ্জাম পাঠাবে না।

সেই সঙ্গে মধ্যপ্রাচ্যের আল আকসা অঞ্চলে ফিলিস্তিন ও ইসরায়েল নামের দু’টি পৃথক স্বাধীন রাষ্ট্র গঠন বা দ্বিরাষ্ট্র সমাধান বাস্তবায়নের লক্ষ্যে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে আহ্বানও জানানো হয়েছে রেজোল্যুশনে।


আরও খবর



কেন পর্তুগালের স্কোয়াডে নেই রোনালদো

প্রকাশিত:বুধবার ২০ মার্চ ২০24 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ৮২জন দেখেছেন

Image

আগামীকাল বৃহস্পতিবার রাতে সুইডেনের মুখোমুখি হবে পর্তুগাল। প্রীতি এই ম্যাচের জন্য ঘোষিত ২৪ সদস্যের স্কোয়াড ঘোষণা করেছে পর্তুগাল। তবে স্কোয়াডে নেই অন্যতম বিশ্বসেরা তারকা ফুটবলার ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। এরপর থেকে তিনি বাদ পড়েছেন কিনা সে বিষয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে।

তবে শুধু রোনালদোই নন, পর্তুগালের স্কোয়াডে নেই আরও বেশ কয়েকজন তারকা ফুটবলার। সেই তালিকায় আছেন– দিয়োগো দালোত, জোয়াও কানসেলো, দানিলো পেরেইরা, ওতাভিও, রুবেন নেভেস, ভিতিনিয়া এবং জোয়াও ফেলিক্স। যদিও এর পেছনে তাদের বিশ্রাম দেওয়ার কথা জানা গেছে।

সংবাদমাধ্যম ইএসপিএন জানিয়েছে, বিশ্রাম দেওয়ার উদ্দেশ্যেই মূলত প্রীতি ম্যাচের স্কোয়াডের বাইরে রাখা হয়েছে রোনালদো, কানসেলো ও ফেলিক্সদের। একই কথা জানিয়েছে স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যম ডায়রিও এএস। তাদের দাবি– ৩৯ বছর বয়সী এই তারকা ফরোয়ার্ডকে ছেটে ফেলা হয়নি, তাকে কেবল আসন্ন প্রীতি ম্যাচ থেকে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে এবং আগামী সপ্তাহেই ফের পর্তুগাল দলে যোগ দেওয়ার কথা রয়েছে তার। এর আগে রোনালদো জাতীয় দলের ৩২ সদস্যের প্রাথমিক দলে ছিলেন।

সুইডেনের বিপক্ষে ম্যাচে বিশ্রাম পাওয়ায়, রোনালদো এখন পরিবারের সঙ্গে ছুটি কাটাচ্ছেন। মঙ্গলবার সমুদ্রসৈকতে সন্তানদের হাত ধরে হাঁটার ছবি পোস্ট করেছেন তিনি। পরে প্রেমিকা জর্জিনা রদ্রিগেজের সঙ্গেও ছবি দিয়েছেন রোনালদো। ছুটি শেষে তিনি জাতীয় দলের পরের প্রীতি ম্যাচের জন্য যোগ দিতে পারেন। ২৬ মার্চ আরেকটি প্রীতি ম্যাচে স্লোভেনিয়ার বিপক্ষে খেলবে পর্তুগাল। সেই ম্যাচে নিশ্চিতভাবেই বাড়তি নজর থাকবে জাতীয় দলের হয়ে রেকর্ড ১২৮ গোল করা রোনালদোর দিকে।

পর্তুগিজ সুপারস্টার সৌদি ক্লাব আল নাসরের জার্সিতেও দারুণ ছন্দে আছেন। আন্তর্জাতিক বিরতির আগে সর্বশেষ সৌদি প্রো লিগের ম্যাচেও গোল করেছেন তিনি। আল আহলির বিপক্ষে ১–০ ব্যবধানের জয়ে গোলটি এসেছে রোনালদোর কাছ থেকে। সব মিলিয়ে সৌদি প্রো লিগের এবারের মৌসুমে সর্বোচ্চ ২৩ গোল করেছেন পাঁচবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী তারকা। সৌদি প্রো লিগে রোনালদো পরের ম্যাচ খেলবেন ৩০ মার্চ আল তাইয়ের বিপক্ষে।

রবার্তো মার্টিনেজ পর্তুগালের কোচ হয়ে আসার পর থেকে এখন পর্যন্ত অপরাজিত আছেন রোনালদোরা। তার অধীনে ১০ ম্যাচের সবকটিতেই জিতেছে পর্তুগাল। যেখানে প্রতিপক্ষের জালে ৩৬ গোল দিলেও, নিজেরা হজম করেছে মাত্র দুই গোল। ওই সময়ে পর্তুগিজদের হয়ে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ১০ গোল এসেছে রোনালদোর পা থেকে।


আরও খবর