Logo
আজঃ শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

রিজওয়ানের প্রতি রানের মূল্য প্রায় ২ লাখ!

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৫৯জন দেখেছেন

Image

যেমন পারফরম্যান্স, তেমন ফিলোসফি, তেমন সাজানো-গোছানো জীবনযাপন আর কঠোর পরিশ্রম মোহাম্মদ রিজওয়ানের। ক্রিকেটার হিসেবে তাকে বলা চলে ভক্তদের হার্টথ্রব। সবই ঠিক ছিল, শুধু বিপিএলে এসে হাওয়ায় মিলিয়ে গেল রিজওয়ানের পারফরম্যান্স। 

পাকিস্তানি সুপারস্টারকে এনে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ভুল করল কিনা এমন প্রশ্ন ওঠাও অবান্তর নয়। কারণ এবারের বিপিএল খেলার বিনিময়ে প্রতি রানের জন্য রিজওয়ানকে যে দিতে হয়েছে ১ লাখ ৮৫ হাজার ৩০০ টাকা করে!  

তাও যদি রিজওয়ানের রান দলের কাজে লাগত, হয়তো অসুবিধা ছিল না। ফরচুন বরিশালের বিপক্ষে আসরে নিজের প্রথম ম্যাচে আউট হন ১৭ রান করে, মোকাবিলা করেছিলেন ১৪ বল। একশর ওপর স্ট্রাইক রেটে ব্যাটিং সে-ই প্রথম, সে-ই শেষ! সিলেট স্ট্রাইকার্সের বিপক্ষে ১৪ রান করেন, ১৬ বল খেলে। 

রংপুর রাইডার্সের বিপক্ষে ১৭ রান, তবে বল খেলতে হলো ২১। চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের বিপক্ষে ১৬ রান করে ছিলেন অপরাজিত, তবে ছোট লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে মোকাবিলা করে ফেলেন ২৪টি ডেলিভারি। সবশেষ খুলনা টাইগার্সের বিপক্ষে ২৮ বলে ২১ রান করে শেষ করলেন এবারের বিপিএলে নিজের পথচলা।

সব মিলে ৫ ইনিংসে ৮৫ রান, যেখানে বল মোকাবিলা করেছেন ১০৩টি। একটি ম্যাচে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ার সুবাদে গড় ২১.২৫। তবে স্ট্রাইক রেট মোটেও রিজওয়ানসুলভ নয়; মাত্র ৮২.৫২। পাকিস্তান সুপার লিগের কারণে এই ৫ ম্যাচ খেলেই দেশে ফিরে যেতে হচ্ছে রিজওয়ানকে। এ দফা বাংলাদেশের দর্শকদের বিনোদন দিতে না পারলেও কুমিল্লা তার প্রতি কার্পণ্য করেনি। 

অনানুষ্ঠানিক সূত্রে জানা যায়, রিজওয়ানের প্রতি ম্যাচে পারিশ্রমিক ৩০ হাজার ডলার। ৫ ম্যাচের জন্য তার পেছনে কুমিল্লার খরচ দেড় লাখ ডলার। রান করেছেন ৮৫। অর্থাৎ রিজওয়ানের প্রতি রানের জন্য কুমিল্লাকে গুনতে হয়েছে ১ লাখ ৮৫ হাজার ৩০০ টাকা করে!


আরও খবর

আইপিএল শুরুর তারিখ নির্ধারণ

বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




জয়পুরহাটে হত্যা মামলায় ১৭ জনের যাবজ্জীবন

প্রকাশিত:বুধবার ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৪৬জন দেখেছেন

Image

জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে জয়পুরহাটের পাঁচবিবির সালেহ মোহাম্মদ হত্যা মামলায় ১৭ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে তাদের প্রত্যেককে ১০ হাজার টাকা করে জরিমানাও করা হয়।

বুধবার (৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ-২ আদালতের বিচারক আব্বাস উদ্দীন এ রায় দেন। দণ্ডপ্রাপ্তদের বাড়ি জেলার পাঁচবিবি উপজেলার বিভিন্ন এলাকায়। এদের মধ্যে ২ জন পলাতক রয়েছেন। এছাড়া এ মামলা থেকে ৫ জনকে খালাস দেওয়া হয়েছে।

আদালত ও মামলার বিবরণে জানা গেছে, জয়পুরহাটের পাঁচবিবি উপজেলার আয়মারসুলপুর চকপাড়া গ্রামের মৃত আলতাফের ছেলে সালেহ মোহাম্মদের সাথে আসামীদের দীর্ঘদিন থেকে জমি-জমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। এ সংক্রান্ত একটি মামলা আদালতে বিচারাধীন ছিল। এরই জের ধরে ২০০৯ সালের ২ মে সকালে সালেহ মোহাম্মদ তার নিজ শ্যালো মেশিন ঘর থেকে বাড়ি ফেরার পথে আসামি মোহাম্মদ আলীর বাড়ির সামনে ওৎ পেতে থাকা সকল আসামিরা তাকে ধরে নিয়ে গিয়ে আমগাছের সাথে হাত-পা বেঁধে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত করে।

এসময় সালেহ মোহাম্মদ পানি খেতে চাইলে আসামিরা পানির বদলে মরিচ গুলানো পানি জোড়পূর্বক পান করালে সে ছটফট করতে করতে নিস্তেজ হয়ে পড়ে। এরপর স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়ার পথে সে মারা যায়। এ ঘটনায় একই তারিখে পাঁচবিবি থানায় ২২ জনের নাম উল্লেখ করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন নিহতের ভাই আজিজুল হক। এ মামলার দীর্ঘ শুনানি শেষে আদালত এ রায় দেন।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত ১৭ আসামিরা হলেন- হাদিউজ্জামান প্রাং, আরিফুল, আবু নাছের প্রাং, শাহজাহান আলী, আশরাফ আলী প্রাং, লাল মোহাম্মদ, মোহাম্মদ আলী প্রাং, জহির প্রাং, শাসছুল আলম প্রাং, সায়েম উদ্দিন প্রাং, ওবাইদুল প্রাং, সইম প্রাং, রহিম প্রাং, আবু সাঈদ প্রাং, আবু বক্কর প্রাং, রানু বেগম ও সাহেরা বেগম।

এছাড়া খালাসপ্রাপ্ত ৫ আসামি হলেন- অমিছা বেগম, শহিদুল ইসলাম, বেলছি বেগম, হাফেজা ফকির ও সবদুল ফকির।


আরও খবর



বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:শনিবার ১০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৪৭জন দেখেছেন

Image

 মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি : মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া ভাটেরচর দেওয়ান আব্দুল মান্নান  পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের ২০২৪ইং সালের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার  সকাল ১০.০০ঘটিকায় দেওয়ান আবদুল মান্নান পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠিত হয়। 

অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন আফজাল হোসেন ও ফাতেমা আক্তার। প্রধান শিক্ষক  মুহাম্মদ শাহজাহান সিকদারের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত  ছিলেন শাখাওয়াত হোসেন, সভাপতি ভাটেরচর দেওয়ান আবদুল মান্নান পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নজরুল ইসলাম অভিভাবক সদস্য সফিকুল ইসলাম, অভিভাবক সদস্য, রেদোয়ান হোসেন মাসুম অভিভাবক সদস্য,মিন্টু খন্দকার অভিভাবক সদস্য।সালমা আক্তার সংরক্ষিত মহিলা সদস্য। মুহাম্মদ সোহরাব হোসেন দাতা সদস্য,  বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদ। 

সম্মানিত সকল শিক্ষক/শিক্ষিকাগন,এসময়  বিদ্যালয়ের সকল শিক্ষার্থীগন ও অনুষ্ঠানে উপস্থিত প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে  বলেন ক্রিয়াই শক্ত ক্রিয়াই বল, এই নিয়ে শিক্ষাংগন। সকল ছাত্রছাত্রীদের জন্য দোয়া ও শুভকামনা জানিয়ে তার বক্তব্য শেষ করেন


আরও খবর



মিয়ানমারে সংঘাত; ওপারে থেমে থেমে গুলি, এপারে আতঙ্ক

প্রকাশিত:বুধবার ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৫৯জন দেখেছেন

Image

মিয়ানমারের অভ্যন্তরে সংঘাতের জেরে দেশটি থেকে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছেন আরও ১১৪ জন। তাঁদের মধ্যে আছেন মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর সদস্য, সেনাসদস্য ও সরকারি কর্মকর্তা। 

উখিয়ার রহমতের বিল এলাকার আধা কিলোমিটার পূর্বে মিয়ানমারের সীমান্ত ঢেঁকিবনিয়া। মঙ্গলবার দুপুরে রহমতের বিল এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, স্থানীয় বাসিন্দাদের চোখেমুখে আতঙ্ক। অনেকে ঘর ছেড়ে আত্মীয়স্বজনদের বাড়িতে চলে যাচ্ছেন।  

একই অবস্থা বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম সীমান্ত এলাকায়। দিনের মতো রাতেও গুলি বর্ষণ হওয়ায় নির্ঘুম রাত কাটছে সীমান্ত এলাকার বাসিন্দাদের।

এদিকে মঙ্গলবার উখিয়ার পালংখালী ইউনিয়নের রহমতের বিল সীমান্ত এলাকা দিয়ে মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড পুলিশের (বিজিপি) আরও ১৪৯ জন সদস্য ঢুকে পড়েছেন। পরে তাঁরা আত্মসমর্পণ করে অস্ত্র জমা দেন। 

উখিয়া উপজেলার পালংখালী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এম গফুর উদ্দিন চৌধুরী জানান, কিছুক্ষণ পরপর গুলি শব্দ। এলাকার লোকজন আতঙ্কে আছেন। অনেকের বাড়িঘরে এসে গুলি পড়ছে। নিরাপত্তার জন্য তাঁদের অন্যত্র সরিয়ে নেওয়া উচিত। 

মিয়ানমারের ঢেঁকিবনিয়া সীমান্তচৌকি ঘিরে রাতভর মর্টার শেল ও গোলাবর্ষণে কেঁপে উঠছে বাংলাদেশের সীমান্ত এলাকার অন্তত ১৩টি গ্রাম। সোমবার রাত নয়টা থেকে মঙ্গলবার সকাল ছয়টা পর্যন্ত অনবরত এই গোলাবর্ষণ ও মর্টার শেল নিক্ষেপের ঘটনা ঘটে। ফলে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুমের মধ্যমপাড়া, জলপাইতলী, মণ্ডলপাড়া, নয়াপাড়া, কোনারপাড়া, পশ্চিমকুল, বেতবুনিয়া বাজার পাড়া এবং উখিয়া উপজেলার পালংখালী ইউনিয়নের উখিয়ার ঘাট, পূর্ব ফাঁড়ির বিল, নলবনিয়া, আঞ্জুমান পাড়া, বালুখালী, দক্ষিণ বালুখালী এলাকা কেঁপে ওঠে।

মিয়ানমারের অভ্যন্তরে সংঘাতের জেরে দেশটি থেকে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছেন আরও ১৪৯ জন। তাঁদের মধ্যে মিয়ানমারের সেনাসদস্য, সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিপির সদস্য ও সরকারি কর্মকর্তা রয়েছেন। এ নিয়ে গত রবিবার থেকে দেশটির মোট ২৬৪ জন পালিয়ে বাংলাদেশে এসেছেন। এঁদের বেশির ভাগ বিজিপির সদস্য।

রামু সেক্টর সদর দপ্তরের সেক্টর কমান্ডার কর্নেল মো. মেহেদি হোসাইন কবির সাংবাদিকদের বলেন, ‘দেশের ভেতরে যাতে প্রাণহানি না ঘটে, সে জন্য আমরা সর্বোচ্চ চেষ্টা করছি। এখন পর্যন্ত যাঁরা এসেছেন, তাঁরা বর্ডার গার্ড পুলিশের অ্যাসোসিয়েটেড। ভাষাগত ও অন্যান্য সমস্যার কারণে এর বাইরে আমরা পরিচয় বের করতে পারিনি।’ এলাকাবাসীর উদ্দেশে তিনি বলেন, নিরাপদে থাকবেন। এই মুহূর্তে প্রয়োজন না হলে সীমান্তের কাছাকাছি যাবেন না।


আরও খবর



বিয়েতে কোন হোটেল বেছে নিলেন রাকুল প্রীত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ২৩জন দেখেছেন

Image

বিয়ে তারিখ আগেই ঘোষণা করেছিলেন বলিউড অভিনয়শিল্পী রাকুল প্রীত সিং ও জ্যাকি ভাগনানি। বলা চলে বিয়ের প্রস্তুতি এখন শেষে দিকে। তিন দিনব্যাপী চলবে রাকুল-জ্যাকির বিয়ের আয়োজন। ১৯ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হবে হলুদ, মেহেদিসহ নানা আচার–অনুষ্ঠান। ২১ ফেব্রুয়ারি ছাদনাতলায় যাবেন রাকুল-জ্যাকি। ২২ ফেব্রুয়ারি মুম্বাইতে বিয়ে– পরবর্তী সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

গোয়ার বিলাসবহুল হোটেল আইটিসি গ্র্যান্ডে হবে তাঁদের বিয়ের অনুষ্ঠান। ২৪৬ কক্ষের রিসোর্টটিতে ইন্দো-পর্তুগিজ কারুকাজের ছোঁয়া আছে। আর বিয়ের জন্য এই হোটেলকে বেছে নেওয়ার জন্য বেশ সাধুবাদও পাচ্ছেন হবু দম্পতি।

এক প্রতিবেদনে ইন্ডিয়া টুডে জানিয়েছে, রাকুল-জ্যাকির বিয়েতে নিমন্ত্রিত অতিথির তালিকা সীমিত। বিশেষ অতিথি ছাড়া বিয়ের আসরে উপস্থিত থাকবেন পরিবার পরিজন আর বন্ধুরা।

বিয়েতে থাকছে কিছু নিয়মকানুন। কার্বনের আধিক্য অর্থাৎ ‘কার্বন ফুটপ্রিন্ট’ কমাতে আতশবাজি ফোটানো নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এর আগে ২০২১ সালে রাকুল প্রীতের জন্মদিনে সামাজিক মাধ্যমে দেওয়া পোস্টে প্রেমের বিষয়টি জানান জ্যাকি ভগনানি। এর পর থেকে বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠানে নিয়মিত দেখা গেছে তাঁদের।


আরও খবর

যে কারণে টাকা ফিরিয়ে দিলেন জয়া

বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ঈধিকার পর এবার মিমি

মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24




ঈধিকার পর এবার মিমি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ২২জন দেখেছেন

Image

'তুফান’ সিনেমায় চিত্রনায়ক শাকিব খানের নায়িকা কে হচ্ছেন তা নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরেই মিডিয়া পাড়ায় আলোচনা চলছে। একাধিক নায়িকাকে নিয়ে জল্পনা-কল্পনা চললেও এখন অবধি সিনেমাটির নির্মাতা রায়হান রাফি বা শাকিব খান, কেউই মুখ খোলেননি।

তবে এবার জোর আলোচনা চলছে সিনেমাটিতে কলকাতার মিমি চক্রবর্তীকে দেখা যাবে শাকিবের সঙ্গে রোমান্স করতে। ঘনিষ্ঠ সূত্রে জানা গেছে, ‘তুফান’ সিনেমায় শাকিবের বিপরীতে দেখা যাবে কলকাতার অভিনেত্রী মিমি চক্রবর্তীকে। আগামী মার্চে ভারতের রামুজিতে শুরু হবে সিনেমাটির শুটিং।

তুফান’ সিনেমাটি প্রযোজনা করছে আলফা আই, চরকি এবং পশ্চিমবঙ্গের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান এসভিএফ। তবে নায়িকা ইস্যুতে এ তিন প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের কেউই এখন পর্যন্ত কোনো মন্তব্য করতে রাজি নন।

উল্লেখ্য, গত বছর ১১ ডিসেম্বর রাজধানীর একটি পাঁচতারকা হোটেলে অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এ সিনেমার নাম ঘোষণা করা হয়। এ সময় সিনেমাটির নির্মাতা রায়হান রাফী বলেন, ‘সুড়ঙ্গ সিনেমার পর আমার অনেক বড় স্বপ্ন ছিল বড় আয়োজনে সিনেমা বানানোর। সেটা এবার পূরণ হতে যাচ্ছে। দেশের বড় সুপারস্টারের সঙ্গে কাজ করছি।  তাকে নিয়ে দেশের বড় সিনেমাটিই আমি উপহার দেবো।’


আরও খবর

যে কারণে টাকা ফিরিয়ে দিলেন জয়া

বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪