Logo
আজঃ শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

আত্মবিশ্বাস ফিরে পেতে এমন আরো দুটি ইনিংস চান সাকিব

প্রকাশিত:বুধবার ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৭৮জন দেখেছেন

Image

হাতে চোট পেয়ে গেল বছর ভারতে অনুষ্ঠিত হওয়া ওয়ানডে বিশ্বকাপের পর থেকে মাঠের বাইরে ছিলেন বাংলাদেশ দলের তিন ফরম্যাটের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। ২২ গজে ফিরেছেন বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) দিয়ে। তবে আসরটিতে শুরু থেকেই ছন্নছাড়া ছিলেন সাকিব। পারছিলেন না ঠিকঠাকভাবে ব্যাটিং করতে।

টুর্নামেন্টের প্রথম ম্যাচ খেলার পর জানা যায় সাকিবের চোখের সমস্যার বিষয়টি। এই কারণে তার ব্যাট করতে সমস্যা হচ্ছিল। তাই এক ম্যাচ বিরতি নিয়ে চোখের চেকআপ করাতে চলে যান সিংগাপুরে। তবে ফিরে এসেও কাঙ্ক্ষিত ফলাফল পাচ্ছিলেন না। মাঝে দুই ম্যাচে ব্যাট হাতে নামেননি। তবে বোলিংয়ে ধারাবাহিক ছিলেন। সব কিছু মিলিয়ে চলমান বিপিএলে খুব বাজে সময়ের মধ্য দিয়েই যাচ্ছিলেন তিনি। তাই তাকে মাঠে শুনতে হয়েছে ‘ধুয়ো’ ধ্বনিও। কিন্তু খারাপ সময় কাটিয়ে ব্যাট হাতে রানে ফিরেছেন বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার। আর যেদিন রানে ফিরলেন সেদিনই তার হাতে উঠল ম্যাচসেরার পুরস্কার।

সিলেট পর্ব শেষে দুই দিনের বিরতির পর গতকাল দুর্দান্ত ঢাকা আর রংপুর রাইডার্সের ম্যাচ দিয়ে দ্বিতীয় ধাপে মিরপুরে ফিরেছে বিপিএল। এদিন সকাল থেকেই মেঘলাটে আকাশ সূর্য দেখা দেয়নি। তবে এমন ধূসর মেঘে জ্বলে উঠলেন সাকিব। আর তাতেই চলমান বিপিএলে প্রথম বারের মতো সাকিবের ব্যাট থেকে চার ছক্কার মার দেখেছে। পুরো গ্যালারি মুখরিত হয়ে গিয়েছিল ‘সাকিব সাকিব’ স্লোগানে, যেখান থেকে আসরের শুরু থেকে ধুয়ো ধ্বনি ভেসে এসেছিল।

মঙ্গলবার সাকিব রংপুরের হয়ে ব্যাট হাতে নামেন তার চির পছন্দের ব্যাটিং পজিশনে। দলীয় ৬৭ রানে ওপেনার রনি তালুকদার ঢাকার স্পিনার আরাফাত সানির এলবি ফাঁদে পড়ে সাজঘরে ফিরলে তৃতীয় ব্যাটার হিসেবে নামেন টাইগার অধিনাক। এ সময় ১৭০ স্ট্রাইকরেটে তিন ছক্কা ও এক চারের মারে খেলেন ২০ বলে ৩৪ রানের ইনিংস। তার ঝড়ো ব্যাটিংয়ে রংপুরও পায় বড় সংগ্রহ। এরপর বল হাতেও ছিলেন দলের সবচেয়ে কিপটে বোলার। ৪ ওভার বল করে মাত্র ১৬ রান দিয়ে শিকার করেন ৩ উইকেট। এমন পারফরম্যান্সের পর ম্যাচসেরা পুরস্কার যে তার হাতেই উঠবে, তা অনুমেয়ই ছিল, আর হয়েছেও তাই।

পরে বিপিএলে নিজের প্রথম ম্যাচসেরার পুরস্কার নিতে এসে ব্রডকাস্টারের সঙ্গে আলাপকালে বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক বললেন, ‘শুধু ম্যাচ প্র্যাকটিস, এটাই আমার দরকার ছিল। বিপিএল কঠিন টুর্নামেন্ট, বিশেষ করে ব্যাটসম্যানদের জন্য। এখানে ইনিংসের শুরুতে ব্যাটিং করা সহজ ছিল না। হ্যাঁ, খুব ভালো লাগছে ক্রিজে কিছু সময় কাটাতে পেরে। আরো কিছু সময় ক্রিজে কাটাতে চাইব। এমন আরো দুটি ম্যাচ পেলে আমি আমার পূর্ণ আত্মবিশ্বাস ফিরে পাব।’ এ সময় এ ম্যাচে ব্যাট করতে সমস্যা হয়েছে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘না, তেমন নয়। আমি উইকেটে কিছু সময় কাটানোর চেষ্টা করেও পারছিলাম না। যেটা আমার দরকার ছিল। আশা করি, আরো কিছু ম্যাচ, আরো কিছু বল খেলতে পারলে আমি (নিজেকে) আরো আত্মবিশ্বাসী বোধ করব।’

এদিকে দলের সেরা অলরাউন্ডার সাকিবের হারানো ছন্দ খুঁজে পাওয়ায় স্বস্তি ফিরে পেয়েছে রংপুর রাইডার্সও। ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে এসে ফ্রাঞ্চাইজিটির অধিনায়ক নুরুল হাসান সোহান বলেন, ‘অবশ্যই সাকিব ভাইয়ের আজকের পারফরম্যান্সের জন্য অনেক খুশি, এটা আমাদের জন্য অনুপ্রেরণাদায়ক। উনি যেভাবে আসলে নিজেকে তৈরি করার চেষ্টা করছিলেন, ফিরে আসার জন্য যে নিবেদন ছিল...ঐ জায়গা থেকে আমিও অনেকটা নির্ভার হলাম তাকে এভাবে খেলতে দেখে।’


আরও খবর

আইপিএল শুরুর তারিখ নির্ধারণ

বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




পিডিআই কানাডার সম্মেলনে প্রবাসীদের দেশের স্বার্থে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৪৮জন দেখেছেন

Image

মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় দুর্নীতিমুক্ত, বৈষম্যহীন ও গণতান্ত্রিক বাংলাদেশের দাবিতে টরন্টোতে অনুষ্ঠিত হয়েছে প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক উদ্যোগ (পিডিআই) কানাডার প্রথম সম্মেলন।

আজফার সাঈদ ফেরদৌসকে সভাপতি ও সাবেক ছাত্রনেতা মনির জামান রাজুকে সাধারণ সম্পাদক এবং নাট্যকর্মী রোমান চৌধুরীকে কোষাধ্যক্ষ করে ২৯ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি নির্বাচিত করা হয়েছে।

সম্মেলনের শুরুতে শোক প্রস্তাব উত্থাপন করেন সোলায়মান তালুত রবিন। সম্মেলনের প্রথম পর্বে ছিল কাউন্সিল অধিবেশন ও দ্বিতীয় পর্বে উন্মুক্ত অধিবেশন। কাউন্সিল অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন আজিজুল মালিক এবং পরিচালনায় ছিলেন মনির জামান রাজু। উন্মুক্ত অধিবেশন পর্বে সভাপতিত্ব করেন বিদ্যুৎরঞ্জন দে এবং পরিচালনায় ছিলেন মাহবুব আলম।

সম্মেলনে বক্তব্য দেন বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মাশুক মিয়া, ডাকসুর সাবেক এজিএস নাসির উদ দুজা, সাবেক ছাত্রনেতা সৌমেন সাহা, উদীচী কানাডা সংসদের সাধারণ সম্পাদক মিনারা বেগম, লেখিকা ও অনুবাদক ফারহানা আজিম শিউলী, টরন্টো বাঙালি কমিউনিটির সক্রিয় কর্মী শিবু চৌধুরী, টরন্টো ফিল্ম ফোরাম সভাপতি এনায়েত করিম বাবুল, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সফিউদ্দিন আহমেদ ও বীর মুক্তিযোদ্ধা নাজমুল হোসেন মনা।

সম্মেলন শেষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের সূচনা সংগীত হিসেবে গান পরিবেশন করেন বিশিষ্ট রবীন্দ্রসংগীতশিল্পী শাহজাহান কামাল। বাংলাদেশ উদীচী শিল্পীগোষ্ঠী কানাডা গণসংগীত পরিবেশন করে। কবিতা আবৃত্তি করেন আবৃত্তিশিল্পী শেখর গোমেজ, রেজা অনিরুদ্ধ ও রওশন জাহান উর্মি।


আরও খবর

ভাষা শহীদদের প্রতি মালয়েশিয়ায় শ্রদ্ধা

বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




ফখরুল-খসরুর জামিন শুনানি ১৪ ফেব্রুয়ারি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৮৫জন দেখেছেন

Image

প্রধান বিচারপতির বাসভবনের সামনে হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনায় করা রমনা মডেল থানার মামলায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরীর জামিন আবেদন শুনানির জন্য ১৪ ফেব্রুয়ারি দিন ধার্য করেছেন আদালত।

মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) ঢাকা মহানগর দায়রা জজ মো. আছাদুজ্জামানের আদালতে জামিনের আবেদন করেন তাদের আইনজীবী সৈয়দ জয়নাল আবেদীন মেজবাহ।

তিনি বলেন, এর আগে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এই মামলায় তাদের জামিনের আবেদন নামঞ্জুর হয়। ওই আদেশের বিরুদ্ধে আমরা মহানগর দায়রা জজ আদালতে জামিনের আবেদন করেছি। এই এক মামলায় জামিন পেলে কারামুক্ত হতে পারবেন তারা বলে জানান এই আইনজীবী।

জানা যায়, গত বছরের ২৮ অক্টোবর বিএনপির মহাসমাবেশ শুরুর আগে প্রধান বিচারপতির বাসভবনের সামনে গাছের ডাল ভেঙে ও হাতের লাঠি দিয়ে নামফলক, গেটে হামলা চালানো হয়। অভিযুক্তরা ভেতরে ইটপাটকেল ছুড়তে থাকেন। এ ঘটনায় মির্জা ফখরুলসহ বিএনপির ৫৯ নেতার বিরুদ্ধে রমনা থানায় মামলা করা হয়।

গত ২৯ অক্টোবর সকাল সাড়ে ৯টার দিকে গুলশানের বাসা থেকে মির্জা ফখরুলকে আটক করে নিয়ে যায় গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। আর ২ নভেম্বর দিবাগত রাত পৌনে ১টার দিকে গুলশানের বাসা থেকে আমীর খসরুকে আটক করে ডিবি পুলিশ। পরদিন ৩ নভেম্বর তার ৬ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। ৯ নভেম্বর রিমান্ড শেষে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়। এরপর থেকে তিনিও কারাগারে রয়েছেন


আরও খবর



বাড়ি ফেরার পথে যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা

প্রকাশিত:সোমবার ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৪৬জন দেখেছেন

Image

যশোরের অভয়নগর উপজেলায় যুবলীগের এক নেতাকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। তার নাম মুরাদ হোসেন। রোববার (১১ ফেব্রুয়ারি) দিবাগত রাত পৌনে ১০টার দিকে উপজেলার নওয়াপাড়া বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মুরাদ নওয়াপাড়ার সরদারপাড়ার শাহাবুদ্দিন ছেলে। তিনি নওয়াপাড়া পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ড শাখা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন অভয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আকিকুল ইসলাম।

স্থানীয়রা ও পুলিশ জানিয়েছে, রাতে নওয়াপাড়া বাজার থেকে তরফদার পাড়ার বাড়ির দিকে হেঁটে যাচ্ছিলেন মুরাদ। পথে কবরস্থানের কাছে তার ওপর হামলা হয়। ছুরিকাঘাতে তিনি মারাত্মক জখম হন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে তাকে নেওয়া হয় অভয়নগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। পরে সেখান থেকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

কে বা কারা মুরাদকে হত্যা করেছে তাৎক্ষণিকভাবে তা জানা যায়নি। ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের ধরতে কাজ শুরু হয়েছে বলে জানিয়েছেন ওসি আকিকুল ইসলাম।


আরও খবর



৪ নিত্যপণ্যের করছাড় দিয়ে এনবিআরের প্রজ্ঞাপন

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৬৪জন দেখেছেন

Image

পবিত্র রমজান মাস উপলক্ষ্যে চাল, ভোজ্যতেল, চিনি ও খেজুরের ওপর শুল্ক-কর ছাড় দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)। আজ বৃহস্পতিবার সংস্থাটির চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম সই করা পৃথক চারটি আদেশে এ তথ্য জানা গেছে। 

গত ২৯ জানুয়ারি মন্ত্রিসভার বৈঠকে রমজান উপলক্ষে ভোজ্যতেল, চিনি, খেজুর ও চালের ওপর শুল্ক কমানোর নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সে সময় তিনি বলেন, রমজানে যেন এসব পণ্যের সরবরাহ কম না হয়।

ওইদিন বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মাহবুব হোসেন সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন, নির্বাচনের পরে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে প্রধানমন্ত্রী বিশেষ গুরুত্ব দিয়েছেন এবং সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীদের সমন্বয়ের ভিত্তিতে এটির ওপর কাজ করতে বলেছেন। বৈঠকেও তিনি মন্ত্রীদের কাছ থেকে সর্বশেষ অবস্থা জেনেছেন, মন্ত্রীরা কী কী কাজ করেছেন সেটি জানিয়েছেন এবং তাদের অভিজ্ঞতা জানিয়েছেন। এরপর প্রধানমন্ত্রী সুনির্দিষ্ট নির্দেশনা দিয়েছেন। 

রমজানে যে পণ্যগুলোর দরকার হয়, বিশেষ করে খেজুর, ভোজ্যতেল, চিনি ও চাল-এই চারটি পণ্যের শুল্কহার হ্রাসের জন্য ওই বৈঠক থেকে এনবিআরকে নির্দেশনা দিয়েছিলেন তিনি।


আরও খবর



সঙ্গীকে বলা ঠিক নয় যেসব কথা

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১১জন দেখেছেন

Image

সম্পর্কে সুন্দর রাখতে সততা, স্বচ্ছতা বজায় রাখা দরকার। এগুলো সম্পর্ককে আরও মজবুত করে তোলে। পরস্পরের প্রতি নির্ভরশীলতা, বিশ্বাসযোগ্যতা বাড়ায়। তবে কখনও কখনও কোনো কোনো সত্য সম্পর্কে দুরত্ব তৈরি করে বলেই মনে করছেন থেরাপিস্টরা। যেমন-

প্রাক্তনের সঙ্গে তুলনা: কথায় কথায় প্রাক্তনের বিষয়ে কথা বলা বা তুলনা আপনার বর্তমান সঙ্গীর আত্মবিশ্বাসকে ক্ষুন্ন করতে পারে। পুরনো সেই স্মৃতিগুলো নিজের কাছেই রাখুন। আপনার রোমান্টিক ইতিহাসের প্রতিটি দিক খুব বেশি প্রকাশের প্রয়োজন নেই। 

অতীতে বিশ্বাস হারিয়ে ফেলার ঘটনা : আগে কী হয়েছিল, সেসব নিয়ে বেশি কথা না বলাই ভালো। যতক্ষণ না বিষয়টি প্রাসঙ্গিক হয়ে ওঠে ততক্ষণ পর্যন্ত আগ বাড়িয়ে এসব নিয়ে কথা বলবেন না। মনে রাখবেন, সন্দেহ সম্পর্কে অস্বস্তি তৈরি করতে পারে। আপনি যদি অতীতে কোনও কারণে সম্পর্কে ঠকে থাকেন তাহলে সেটাকে শিক্ষা হিসাবে গ্রহণ করুন।

চেহারা নিয়ে অপ্রয়োজনীয় সমালোচনা: সঙ্গীর চেহারা বা শারীরিক গঠন যাই হোক তা নিয়ে অন্যদের সঙ্গে তুলনা করবেন না। এ নিয়ে অযৌক্তিক সমালোচনা করাও ঠিক নয়। ওজন, বয়স, বা ব্যক্তিগত সাজসজ্জার অভ্যাস সম্পর্কে মন্তব্য করার আগে সচেতন থাকুন।

পরিবারের ঘনিষ্ঠ সদস্যদের সম্পর্কে নেতিবাচক মতামত: সঙ্গীর পরিবারের ঘনিষ্ঠ সদস্যদের সম্পর্কে কখনও নেতিবাচক কথা বলবেন না, সেটা যতই সত্যি হোক না কেন। এতে দুটো মানুষের মধ্যে দূরত্ব তৈরি হতে পারে।

এসব ছাড়াও সম্পর্কের ভবিষ্যৎ নিয়ে অতিরিক্ত চিন্তা করবেন না। এতে সম্পর্কের জটিলতা বাড়ে। পাশাপাশি নিজের বন্ধুদের ব্যক্তিগত বিষয় সঙ্গীকে জানাবেন না। এতে পরবর্তী সময়ে আপনি সমস্যায় পড়তে পারেন। 


আরও খবর